Connect with us

আন্তর্জাতিক

পাকিস্তানি ভক্তদের অপেক্ষা বাড়লো

বৈরী আবহাওয়ার কারনে করাচির জাতীয় স্টেডিয়ামে খেলা পরিত্যক্ত হওয়ার নজির এই প্রথম প্রত্যক্ষ করলো পাকিস্তান।

প্রকাশিত

তারিখ

পাকিস্তানি ভক্তদের অপেক্ষা বাড়লো
বৃষ্টিতে বিঘ্ন পাকিস্তান শ্রীলঙ্কা ম্যাচ। ছবিঃ করাচি পোস্ট

আবারও অপেক্ষা। সুদীর্ঘ দশ বছরের অপেক্ষার পালায় আরো একদিন যোগ করতে যাচ্ছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড সহ পাকিস্তানি ক্রিকেট প্রেমীরা।

পাকিস্তান ও শ্রীলঙ্কার তিন ওয়ানডে ম্যাচ সিরিজের প্রথম ম্যাচটি ইতিমধ্যেই অপ্রত্যাশিত অতিরিক্ত বৃষ্টিপাতে পরিত্যক্তের খাতায় নাম লিখিয়েছে, এমনকি ঐ ম্যাচে টস করাও সম্ভব হয়ে ওঠে নি দুই দলের।

২৭ সেপ্টেম্বর প্রথম ম্যাচ বাতিলের পর আগামীকাল ২৯ সেপ্টেম্বরে সংঘটিত হওয়া ম্যাচটির জন্য নতুন সূচি প্রবর্তন করেছে পিসিবি। আগামীকাল ভারী বৃষ্টির আশংকা সহ, মাঠ প্রস্তুতিরও জন্যও সময়ের প্রয়োজন জানিয়ে পিসিবি এক বিবৃতিতে বলেন ” প্রবল বৃষ্টিতে আউটফিল্ড সিক্ত হয়ে গেছে। মাঠকে খেলার উপযোগী করতে মাঠকর্মীদের কমপক্ষে দুই দিন সময় প্রয়োজন”।

তবে নতুন সূচি পরিবর্তনের ব্যাপারটি পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি), শ্রীলঙ্কান ক্রিকেট বোর্ড সহ গ্রাউন্ড স্টাফদের পরামর্শ ক্রমেই নির্ধারন করা হয়েছে বলে জানান।

পিসিবির আন্তর্জাতিক ক্রিকেট পরিচালক জাকির খান জানান, ‘এই সপ্তাহের অপ্রত্যাশিত ভারী বৃষ্টি আমাদের সিরিজের সূচি বদলাতে বাধ্য করেছে। পাকিস্তানের জন্য গুরুত্বপূর্ণ এই দ্বিপাক্ষিক সিরিজের আর কোনো ম্যাচ যেনো বৃষ্টিতে পরিত্যক্ত না হয় সেটা নিশ্চিত করতে সূচি পরিবর্তনে রাজি হওয়ায় আমি শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট বোর্ড ও সম্প্রচারকারী প্রতিষ্ঠানের কাছে কৃতজ্ঞ।’

সুতারাং ২৯ শে সেপ্টেম্বরে যে ম্যাচটি সংঘটিত হওয়ার কথা ছিলো সে ম্যাচটি ৩০ শে সেপ্টেম্বর অনুষ্ঠিত হবে। তৃতীয় ম্যাচটি অবশ্য আবহাওয়ার উল্লেখযোগ্য পরিবর্তন না হলে আগের সূচি অনুযায়ী ২ অক্টোবর অনুষ্ঠিত হবে।

বৈরী আবহাওয়ার কারনে করাচির জাতীয় স্টেডিয়ামে খেলা পরিত্যক্ত হওয়ার নজির অবশ্য এই প্রথম প্রত্যক্ষ করলো পাকিস্তান। টানা ভারী বৃষ্টির কারনে ম্যাচের প্রথম ম্যাচে ড্রেসিংরুমেই কাটাতে দেখা গিয়েছিলো ক্রিকেটারদের।

এই সিরিজের জন্য পিসিবির নিয়ম অনুযায়ী ২৭ তারিখের ম্যাচ বাতিলের টিকিট দিয়ে ৩০ বা ২ অক্টোবরের খেলা উপভোগ করতে পারবে ক্রিকেট প্রেমীরা। আবার ২৯ তারিখের টিকিটে ৩০ বা ২ অক্টোবরে অনুষ্ঠিত ম্যাচ দেখা যাবে। আবার সিরিজের প্রথম পরিত্যক্ত ম্যাচের টাকা ফেরত নেওয়ার সুযোগও রয়েছে দর্শকদের।

সর্বশেষ করাচিতে ২০০৯ সালে ওয়ানডেতে নিজেদের মাঠে এই শ্রীলঙ্কার মুখোমুখি হয়েছিলো পাকিস্তান। আজ প্রায় দশ বছর পরে নিরাপত্তা জনিত কারনে পাকিস্তান ট্যুরে অসম্মতি জানিয়ে অংশগ্রহণ করেনি শ্রীলঙ্কার প্রথম শ্রেণীর ক্রিকেটারদের অনেকেই। উল্লেখ্য সেবার লাহোরে শ্রীলঙ্কা দলকে বহনকারী বাসে হামলা চালিয়েছিল সন্ত্রাসীরা।

নিজেদের গ্লানির এই লজ্জ্বাজনক পরিস্থিতির মাশুল গুনতে হয়েছে পাকিস্তানিদের বহু বহুদিন। সমাপ্তি এবার সে প্রতীক্ষার। নিজেদের মাটিতে খেলা দেখার প্রতীক্ষার অবসানে প্রকৃতি বাঁধার সমাপ্তিই কাম্য এখন দর্শক, ভক্ত সহ সহ সকলের।

পুরোটা পড়ুন
কমেন্ট করুন/দেখুন

ট্রেন্ডিং টপিক